বাঘায় তৃতীয় তলা থেকে পড়ে পা ভাঙ্গলো মাদ্রাসা ছাত্রীর

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধিঃ রাজশাহীর বাঘায় রুবাইয়া ইসলাম দুলা (৭) নামের এক মাদ্রাসা ছাত্রী তৃতীয় তলা থেকে পড়ে পা ভেঙ্গেছে। বুধবার (১৬ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলা সদরের উত্তর মিলিক বাঘা মহিলা মাদ্রাসায় এই ঘটনা ঘটেছে। পরিবারের অভিযোগ মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের অবহেলায়র কারনে এই ঘটনাটি ঘটেছে। তবে মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের দাবি ছাত্রীর অসাবধানতায় এমন ঘটনা ঘটেছে।
জানা যায়, করোনাকালনি সময়ে স্কুল ছুটি থাকার কারনে বাজুবাঘা নতুনপাড়া গ্রামের রবিউল ইসলাম বাবুর মেয়ে রুবাইয়া ইসলাম দুলাকে কোরআন শিক্ষার জন্য মাদ্রাসায় ভর্তি করে। প্রতিদিনের ন্যায় সে কোরআন শিক্ষা গ্রহনের জন্য মাদ্রাসায় যায়। সে মাদ্রাসার তৃতীয় তলায় উঠে ছুটাছুটি করছিল। এ সময় অসাবধানতায় মাদ্রাসা সংগলœ টিনের চালার উপর পড়ে যায়। আহত অবস্থায় সেখান থেকে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্রে নেয়া হয়। তার অবস্থা বেগতিক দেখে স্থানীয় এক ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে। পরীক্ষা নিরীক্ষা করলে তার ডান পাড় ভেঙ্গে গেছে বলে জানা যায়। এছাড়া তার শরীরের বিভিন্নস্থানে আঘাত প্রাপ্ত হয়েছে।
এ বিষয়ে রুবাইয়া ইসলাম দুলার দাদা আমিরুল ইসলাম বলেন, মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের অবহেলার কারনে এমন ঘটনা ঘটেছে। তিনি আরো বলেন ওই মাদ্রাসার জানালার দরজা না থাকায় এই দুরঘটনা ঘটেছে।
মাদ্রাসার পরিচালক শফিকুল ইসলাম বলেন, আমরা দিন শিক্ষার জন্য মাদ্রাসা পরিচালনা করছি। অনেকেই এর বিরোধীতা করছে। তারপরও সঠিকভাবে পরিচালনা করা হচ্ছে। তবে রুবাইয়া ইসলাম দুলা নামের এক ছাত্রী তার বয়স মাত্র ৭ বছর। সে মাদ্রাসার তৃতীয় তলায় গিয়ে দোড়াদড়ি করতে গিয়ে পা ফসকে গিয়ে পড়ে গিয়ে আহত হয়েছে। তাকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। পরিবারের পক্ষ থেকে কোন অভিযোগ করেনি। তারপরও মাদ্রাসার পক্ষ থেকে তার চিকিৎসার জন্য তদারকি করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *