১২ কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে এমপি আব্দুল মমিন মন্ডলের শশুর জাহাঙ্গীর আলম গ্রেপ্তার

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি : সিরাজগঞ্জ-৫ আসনের এমপি আব্দুল মমিন মণ্ডলের বাবা মণ্ডল গ্রুপের চেয়ারম্যান ও সাবেক এমপি আব্দুল মজিদ মণ্ডলের প্রায় ১২ কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে করা মামলায় তারই আপন বিয়াই (সংসদ সদস্য ছেলে আব্দুল মমিন মন্ডলের শশুর) জাহাঙ্গীর আলমকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২০ অক্টোবর) দুপুরের দিকে সিরাজগঞ্জ শহরের এস এস রোড এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত জাহাঙ্গীর আলম শহরের মোক্তারপাড়া মোড়ের মৃত মনছুর রহমানের ছেলে।

সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) গোলাম মোস্তফা তাকে গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, মঙ্গলবার ভোরে মণ্ডল গ্রুপের প্রতিষ্ঠান মণ্ডল অটোব্রিক্স লিমিটেডের প্রতিনিধি আওলাদ হোসেন বাদী হয়ে ১২ কোটি দুই লাখ টাকারও বেশি টাকা প্রতারণার মাধ্যমে হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ এনে জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে মামলাটি দায়ের করেন। দুপুরের দিকে শহরের এস এস রোড এলাকা থেকে আসামিকে গ্রেফতার করা হয়।
মামলার বাদী আওলাদ হোসেন বলেন, জাহাঙ্গীর আলম হলেন সাবেক এমপি ও মণ্ডল গ্রুপের চেয়ারম্যান আব্দুল মজিদ মণ্ডলের ছেলে বর্তমান এমপি এবং মণ্ডল গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আব্দুল মমিন মণ্ডলের শ্বশুর।

আত্মীয়তার সুবাদে বাড়িতে যাতায়াত করতেন তিনি। একপর্যায়ে বেয়াই জাহাঙ্গীর আলমের কাছে মণ্ডল অটোব্রিক্স লিমিটেড স্থাপনের জন্য ৩শ’-৪শ’ বিঘা জমি কেনার ইচ্ছার কথা জানান আব্দুল মজিদ।

তখন জাহাঙ্গীর আলম নির্ভেজাল জমি কিনে দেওয়ার কথা বললে আব্দুল মজিদ সরল বিশ্বাসে জাহাঙ্গীর আলমকে জমি কেনার জন্য ২০১২ সাল থেকে ২০১৭ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত নগদে ও চেকের মাধ্যমে ১২ কোটি দুই লাখ ২২ হাজার ৯৪০ টাকা দেন।
কিন্তু বগুড়া জেলার শেরপুরে জমি কেনার কথা বললেও জাহাঙ্গীর আলম কোনো জমি না কিনে ওই টাকা আত্মসাৎ করেন। আত্মসাৎ করা টাকা ফেরত দেওয়ার বিষয় নিয়ে সিরাজগঞ্জ পৌরসভা ও চেম্বার ভবনে বিভিন্ন সময়ে সালিশ বৈঠকও হয়েছে। বার বার সময় নিয়েও ওই টাকা তিনি ফেরত দেননি। এ অবস্থায় আব্দুল মজিদ গত ১৫ সেপ্টেম্বর জাহাঙ্গীর আলমকে টাকা ফেরত দেবেন কিনা জিজ্ঞেস করলে তিনি টাকা দেবেন না বলে জানান। এ কারণে বাধ্য হয়ে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *