রাসিকের অর্থ ও সংস্থাপন স্থায়ী কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের অর্থ ও সংস্থাপন স্থায়ী কমিটির এক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার দুপুওে নগর ভবনের সরিৎ দত্তগুপ্ত সভাকক্ষে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও অর্থ ও সংস্থাপন স্থায়ী কমিটির সভাপতি এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটনের সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে মেয়র বলেন, নাগরিক সেবার প্রতিষ্ঠান রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন। নাগরিক সেবা বৃদ্ধি করতে প্রয়োজন অর্থ। নাগরিক সেবা বৃদ্ধি ও সিটি কর্পোরেশনের আয় বৃদ্ধি করতে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। সিটি কর্পোরেশনের আয় বৃদ্ধির প্রচেষ্টায় অব্যাহত রয়েছে।
মেয়র আরো বলেন, করোনায় বিশ^ এখন কঠিন সময় অতিবাহিত করছে।সারাদেশের ন্যায় রাজশাহীতেও করোনার প্রকোপ বৃদ্ধি পেয়েছে। করোনা পরিস্থিতির মধ্যেও রাসিকের সকল সেবা কার্যক্রম অব্যাহত রাখতে হবে। ইতোমধ্যে ২০২১-২০২২ অর্থবছরের বছরের বাজেট সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। আগামী বছরটিও করোনার প্রকোপ অব্যাহত থাকতে পারে। এরই মধ্যে দিয়ে আগামী দিনগুলো অতিবাহিত করতে হবে। সকলের প্রচেষ্টায় ঋণ ছাড়ায় নিজেদের অর্থ দিয়েই কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতনভাতা প্রদান করা সম্ভব হচ্ছে।
সভায় ২০২০-২০২১ অর্থবছরের অটোরিক্সা, চার্জার রিক্সা ও চালকের লাইসেন্স জরিমানা ছাড়া নবায়নে ৩১ আগষ্ট পর্যন্ত সময়সীমা বৃদ্ধির বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এছাড়া সিটি কর্পোরেশনের নির্মাণাধীন স্বপ্নচুড়া প্লাজা, সিটি সেন্টার, বৈশাখী বাজার, দারুচিনি মার্কেটের কাজের অগ্রগতি পর্যালোচনা এবং নির্মিত মার্কেটের সিটি কর্পোরেশনের অংশ বুঝে নেয়ার বিষয়ে আলোচনা করা হয়। এছাড়াও ৫ম তলা বিশিষ্ট সিমলা সুপার মার্কেটের অবকাঠামো নির্মাণ রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন ও উদ্যোগী সংস্থার মধ্যে সমঝোতার মাধ্যমে মার্কেটের ফ্লোর ভিত্তিক শেয়ার বন্টন ও হস্তান্তর বিষয়ে আলোচনা করা হয়।
সভায় রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, প্যানেল মেয়র-২ ও ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রজব আলী, ২১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নিযাম উল আযীম, ২২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল হামিদ সরকার টেকন, ১৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর বেলাল আহম্মেদ, ১৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুস সোবহান, ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম, ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ কামরুজ্জামান, ৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর এসএম মাহবুবুল হক, প্রধান প্রকৌশলী শরিফুল ইসলাম, সচিব মশিউর রহমান, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী নুর ইসলাম তুষার, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা আবু সালেহ মোঃ নুর-ই-সাঈদ, বাজেট কাম হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম খান, ট্যাক্সেশন কর্মকর্তা (কর) ইমতিয়াজ আহম্মেদ শিমুল, ট্যাক্সেশন কর্মকর্তা (লাইসেন্স) সারোয়ার হোসেন, সম্পত্তি কর্মকর্তা আবু নুর মোঃ মতিউর রহমান ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *