রাজশাহীতে ৩ হাজার পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার দিলেন রাসিক মেয়র লিটন

আগামীকাল বৃহস্পতিবার (০১ জুলাই) থেকে সারাদেশে শুরু হচ্ছে কঠোর বিধিনিষেধ। সপ্তাহব্যাপী এই কঠোর বিধিনিষেধ চলাকালে বাইরে কেউ বের হতে পারবে না। এ সময় বন্ধ হয়ে থাকবে গরীব, অসহায়, দিনমুজুর, রিক্সা ও ইজিবাইক চালক সহ বিভিন্ন পেশার স্বল্প আয়ের মানুষের আয়। এমন পরিস্থিতিতে কেউ যাতে খাদ্য সংকটে না থাকে সেজন্য কঠোর বিধিনিষেধ শুরুর আগেই রাজশাহী মহানগরীর ১২টি পেশাজীবী সংগঠনের সদস্যবৃন্দ এবং গরীব, অসহায়, ছিন্নমূল, দিনমুজুর ও কর্মহীন ৩ হাজার ৫০টি পরিবারকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে খাদ্য সহায়তা প্রদান করা হয়েছে। রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটনের পক্ষে বুধবার বিকেলে মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতি স্টেডিয়ামে সামাজিক দূরত্ব মেনে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

উল্লেখ্য, ১২টি সংগঠনের মোট ৩ হাজার ৫০জনকে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়। খাদ্য সামগ্রীর প্রতিটি প্যাকেটে ১০ কেজি চাল ও ১ কেজি ডাল আছে। ১২টি পেশাজীবী সংগঠনের মধ্যে রাজশাহী মহানগর ইজিবাইক মালিক শ্রমিক কল্যাণ সমবায় সমিতির ৪০০জন, রিক্সা-ভ্যান শ্রমিক লীগের ৪০০ জন, রাজশাহী মহানগর ইজিবাইক শ্রমিক ইউনিয়নের ৪০০ জন, সেলুন শ্রমিক ইউনিয়নের ৩০০জন, হোটেল কর্মচারী ইউনিয়নের ৩০০জন, ওয়েন্ডিং শ্রমিক লীগের ২০০ জন, দর্জি শ্রমিক ইউনিয়নের ১০০ জন, জেলা অটোরিক্সা/অটো টেম্পো চালকদের ২০০ জন, সংবাদপত্র হকার্স ইউনিয়নের ২০০ জন, মহানগর ফার্নিচার শ্রমিক ইউনিয়নের ২০০ জন, রাজশাহী ফল ব্যবসায়ী কল্যাণ সংস্থার ২৫০ জন, সড়ক পরিবহন গ্রুপ কর্মচারী ইউনিয়নের ১০০ জনকে খাদ্য সামগ্রী প্রদান করা হয়।
এরআগে মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতি স্টেডিয়ামে সামাজিক দূরত্ব মেনে সারি সারি করে বসানো চেয়ার। প্রতিটি চেয়ারের পাশে রাখা হয় খাদ্য সামগ্রীর প্যাকেট। অনুষ্ঠানে রাসিক মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটনের পক্ষে কয়েকজনের হাতে প্যাকেট তুলে দিয়ে বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন মহানগর আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ ও রাসিকের কর্মকর্তাবৃন্দ। এরপর প্রতিটি ব্যক্তি তার চেয়ারের পাশে রাখা প্যাকেট নিয়ে সামাজিক দূরত্ব মেনে মাঠ ত্যাগ করেন। এরআগে দুপুর থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ও মাস্ক পরে স্টেডিয়ামে প্রবেশ করেন উপকার ভোগীরা।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের সচিব মোঃ মশিউর রহমান, মাননীয় মেয়রের একান্ত সচিব মোঃ আলমগীর কবির, রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোস্তাক হোসেন ও আহসানুল হক পিন্টু, তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক জিয়া আজাদ হোসেন হিমেল, ত্রাণ ও সমাজকল্যান সম্পাদক ফিরোজ কবির সেন্টু, শ্রম বিষয়ক সম্পাদক মোঃ আব্দুস সোহেল, রাজশাহী জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ওয়াহেদুন নবী অনু প্রমুখ।
বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধন শেষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তাঁর পরিবারের সদস্যবৃন্দ, জাতীয় চার নেতাসহ সকল শহীদের আত্মার মাগফিরাত কামনায় দোয়া ও মোনাজাত করা হয়। দোয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুস্থ্যতা ও দীর্ঘায়ু কামনা করা হয়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *