বাঘায় স্বামীর ওপর অভিমান করে গৃহবধূর আতœহত্যা

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি : রাজশাহীর বাঘায় স্বামীর ওপর অভিমান করে উজালা আক্তার (২২) নামের এক গৃহবধূর বিষপান পানে অতœহত্যার খবর পাওয়া গেছে। গত (১৪নভেম্বর) বেলা ১২ টায় তিনি বিষপান করলে (২৪ নভেম্বর) বুধবার রাতে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। তিনি পাকুড়িয়া ইউনিয়নের পানিকামড়া গ্রামের মিঠুন আলীর স্ত্রী ও বাঘা পৌর এলাকার বাজুবাঘা গ্রামের কালাচান আলীর মেয়ে।

জানা যায়, ১৪ নভেম্বর সকালে স্বামী মিঠুন আলীকে মাদক সেবন করতে মানা করায় মিঠুন আলী স্ত্রী উজালা আক্তার কে মারধর করে বাড়ি থেকে বেরকরে দেয়। উজালা আক্তার বাঘা বাজার এলাকায় গেল বেলা ১২ দিকে কোনো এক সময়ে বাবার বাড়ির পাশে বাঘার বিলে মায়ের চোখের আড়ালে বিষপান করেন তিনি। পরে সেখান থেকে গৃহবধূর মা তাকে দ্রুত বাঘা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্য্রে নিয়ে গেল সেখানে তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২৪ নভেম্বর বুধবার রাতেই তার মৃত্যু হয়।

গৃহবধুর মা জানান, জামাই বিয়ে পর থেকে মাদক আসক্ত হয়ে পড়লে মেয়ে মাদক খেতে মানা করায় তার স্বামী তাকে বিভিন্ন সময় মারধর করতো। এসব কষ্ট সইতে না পেরেই তার মেয়ে বিষ পান করেছে। পরে তিনি হাসপাতালে নিয়ে গেল সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১০ দিন পার তার মৃত্যু হয়। তবে  এ বিষয়ে জানতে চাইলে গৃহবধুর স্বামী মিঠুন আলীকে  পাওয়া যায় নি।

বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাজ্জাদ হোসেন জানান, বিষপানে আতœহত্যার ঘটনায় কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেল তদন্তক্রমে আইনাগ ব্যবস্থা করা হবে।

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *