গোমস্তাপুরে নতুন করে ৩ জন করোনা রোগী শনাক্ত

গোমস্তাপুর (চাঁপাইনবাবগঞ্জ) প্রতিনিধি ঃ চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুরে নতুন করে আরও ৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। তবে বুধবার সকালে রাজশাহীর পিসিআর ল্যাব থেকে ৯ জনের পজিটিভ রির্পোট আসে। এর মধ্যে আগেই গোমস্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টে ৬ জন শনাক্ত হয়েছিল। এ নিয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মোট ৫৮ জনের দেহে করোনা শনাক্ত করা হয়েছে।
গোমস্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের করোনা মনিটরিং কর্মকর্তা ডা. হাসান আলি বলেন, বুধবার সকালে রাজশাহীর পিসিআর ল্যাব থেকে ৯ জনের পজিটিভ রিপোর্ট পাওয়া যায়। তারমধ্যে ৬ জন আগেই র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টে শনাক্ত করা হয়। শনাক্ত ৩ জন গোমস্তাপুর,বাঙ্গাবাড়ী ও আলিনগর ইউনিয়নের রয়েছে। তাদের বয়স ২৫ থেকে ৪০ বছর পর্যন্ত । তারা বাড়ীতে আইসোলশনে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছে। তিনি আরও জানান, গত ১৭ এপ্রিল থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট ও পিসিআর ল্যাবে মোট ৫৮ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে গোমস্তাপুর উপজেলার ৫১জন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর ও নাচোল উপজেলার ২ জন করে, রাজশাহী, নিয়ামতপুর ও ভোলাহাট উপজেলার ১জন করে রয়েছে। এছাড়া সুস্থ্য হয়েছেন ১৪জন, চিকিৎসা নিচ্ছে ৪৩ জন ও মৃত্যু বরণ করেন ১ জন।

৭ দিনের লকডাউনের ২য় দিনে গোমস্তাপুরে ২৬ জনকে অর্থদন্ড
গোমস্তাপুর (চাঁপাইনবাবগঞ্জ) প্রতিনিধি ঃ চাঁপাইনবাবগঞ্জে জেলা প্রশাসন কর্তৃক ঘোষিত সর্বাত্মক ৭ দিনের লক ডাউনের ২য় দিনেও গোমস্তাপুরে কঠোর অবস্থানে রয়েছে প্রশাসন। বুধবার সকাল থেকে জেলাসহ অন্যান্য উপজেলা ন্যায় গোমস্তাপুর উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় উপজেলা প্রশাসন ও আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর টহল লক্ষ্য করা গেছে। লকডাউনে ২য় দিনে উপজেলার বেশীরভাগ দোকানপাট বন্ধ ছিল। রাস্তাঘাটে যানবাহন ও জনসাধারণের চলাচল ছিল সীমিত। লকডাউনের বিধি নিষেধ অমান্য করায় ২৬ জনকে অর্থদন্ড দেন উপজেলা প্রশাসনের দু’টি ভ্রাম্যমান আদালত।
গোমস্তাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলিপ কুমার দাস বলেন, লকডাউন ২য়দিনে পুলিশ প্রশাসন কঠোর অবস্থানে রয়েছে। কৃষিপন্য গাড়ীসহ আম ও ধানবাহী যানবাহনগুলোকে চলাচলে সহায়তা করছে পুলিশ।
ভ্রাম্যমান আদালত সূত্রে জানা জানা যায়, বুধবার বিকেল পর্যন্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোঃ মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে লকডাউনের বিধি নিষেধ অমান্য করায় ৮ জনকে ৬ হাজার টাকা ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) শাহরিয়ার নজির ১৮জনকে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ১৯ হাজার ৯’শ টাকা অর্থদন্ড দেয়া হয়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *